সুস্থ থাকার উপায়

বিভিন্ন দৈনিক সংবাদপত্র থেকে নেয়া চিকিৎসা সংক্রান্ত কিছু লেখা…

সুস্থ থাকার উপায় - বিভিন্ন দৈনিক সংবাদপত্র থেকে নেয়া চিকিৎসা সংক্রান্ত কিছু লেখা…

চকলেট হৃদযন্ত্রের জন্য উপকারী

চকলেট হৃদরোগের ঝুঁকি কমাতে সহায়ক— এমনটিই দেখা গেছে নতুন এক গবেষণায়। কিন্তু তাই বলে বেশি বেশি চকলেট খেতে শুরু করার পরামর্শ এখনই দিচ্ছেন না হৃদরোগ বিশেষজ্ঞরা। কারণ, বেশকিছু গবেষণায় চকলেট খাওয়ার সঙ্গে হৃদযন্ত্রের সুস্থতার সম্পর্ক খুঁজে পাওয়া গেলেও অন্য আরও গবেষণায় এমন সম্পর্ক পাওয়া যায়নি। ইউরোপে বৃহত্তম চিকিত্সা বিষয়ক বৈঠকে নতুন গবেষণার ফল জানিয়ে বলা হয়েছে, চকলেট খেলে হৃদরোগের ঝুঁকি এক-তৃতীয়াংশ কমে। তবে চকলেট খাওয়ার সঙ্গে এর সম্পর্ক কী তা এখনও পরিষ্কার নয়।

সম্প্রতি কয়েক বছরে পরিচালিত কয়েকটি বৈজ্ঞানিক গবেষণায় দেখা গেছে, চকলেট খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য কার্যকর। বিশেষ করে কালো চকলেটে ফ্লেভানলস নামের একটি উপাদান আছে, যা রক্তের জন্য উপকারী। হৃদরোগের সঙ্গে চকলেট খাওয়ার সম্পর্ক কতটুকু সে সম্পর্কে পরিষ্কার ধারণা দিতে কেমব্র্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক অস্কার ফ্রাঙ্কো ও তার সহকর্মীরা ১ লাখ মানুষের ওপর পরিচালিত সাতটি গবেষণার ফল বিশ্লেষণ করেছেন। এর মধ্যে পাঁচটি গবেষণার ফলে দেখা গেছে, হৃদস্বাস্থ্যের জন্য চকলেট খাওয়া উপকারী। কিন্তু বাকি দুটি গবেষণায় এমন কোনো লক্ষণ দেখা যায়নি।

গবেষণার ফলে সামগ্রিকভাবে যে তথ্য বেরিয়ে এসেছে তাতে দেখা গেছে, অনেক বেশি চকলেট খেলে হৃদরোগের ঝুঁকি ৩৭ শতাংশ কমে। কিন্তু স্ট্রোকের ক্ষেত্রে চকলেট একেবারেই কম খাওয়া বাঞ্ছনীয়। এতে স্ট্রোকের ঝুঁকি কমে ২৯ শতাংশ। তবে এ গবেষণাগুলোর কিছু সীমাবদ্ধতা আছে। বিশেষ করে কালো চকলেট এবং মিল্ক চকলেট—এ দুয়ের মধ্যকার পার্থক্য গবেষণায় পরিষ্কার হয়নি। ফলে চকলেট আসলেই স্বাস্থ্যের জন্য কতটা উপকারী তার প্রমাণ পেতে আরও গবেষণার প্রয়োজন বলে জানিয়েছেন ফ্রাঙ্কো।

%d bloggers like this: